রবীন্দ্র কর্মকার:  সারাতে না সারাতেই খারাপ। সবে মাত্র ঘাটাল-পাঁশকুড়া সড়কটি নতুন করে সংস্কার হয়েছে।  এরই মধ্যে রাস্তাটির বিভিন্ন জায়গায় পিচ উঠে খারাপ হতে শুরু করায় ক্ষুব্ধ জনসাধারণ থেকে পথচারীরা। প্রশ্ন উঠেছে, নিম্নমানের সমগ্রী দিয়ে রাস্তা তৈরি করা হয়েছে। রাস্তায় ওভারলোডেড গাড়িগুলিকে চলতে দেওয়ায় পুলিশ প্রশাসনকেও দায়ী করে  অভিযোগের আঙুল তুলছেন সবাই।

- Inline advertisement -

ব্যস্ততম সড়কের মধ্যে অন্যতম ঘাটাল-পাঁশকুড়া সড়কটি একপাশ থেকে সারানো হচ্ছে অন্যপাশ থেকে রাস্তার পিচ উঠে, গর্ত হয়ে গিয়ে বেহাল হয়ে পড়ছে। এখনও বর্ষা আসেনি। শুষ্ক আবহাওয়াতেই যদি রাস্তার এই দশা হয় তবে বর্ষাকালে সড়কটি কী চেহারা নেবে তা বলাইবাহুল্য। দাসপুর থানার বৈকুন্ঠপুর ও  বেলতলার মাঝে রাস্তাটির আরও বেহাল দশা। নতুন পিচ ঢালার পর এক মাসও কাটেনি এরই মধ্যে রাস্তার পিচ উঠে মাটি বেরিয়ে পড়েছে। কোনো কোনো জায়গায় পিচ বসে গিয়ে গর্তের আকার ধারণ করেছে।  এমনই অবস্থা যে  নতুন রাস্তাকে খুঁড়ে সেই পিচ বাদ দিয়ে আবার নতুন করে সংস্কার করা চলছে। রাস্তার অবস্থা যা দেখা যাচ্ছে, সারাবছরই এই সড়কটিতে সারানোর কাজ চালিয়ে রাখতে হবে।  রাস্তার বিভিন্ন জায়গায় পিচ উঠে গিয়ে গর্ত হয়ে গিয়েছে। পিচ আর জমাট হয়ে নেই, এক্কেবারে বালির মত ঝরে পড়ছে।

 কোথাও বা রাস্তার আকার বিকৃত হয়ে গিয়েছে। বাইক বা অন্যান্য ছোট যানবাহন এই জায়গাদিয়ে গেলেই দুর্ঘটনা ঘটার সম্ভবনা রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here