কেরিয়ার কাউন্সেলিং

সুমন বিশ্বাস WBCS [SDO, Ghatal]: পশ্চিমবঙ্গ সরকারের শিক্ষা দপ্তরের উদ্যোগে প্রতিটি বিদ্যালয়ে চলছে কেরিয়ার কাউন্সেলিং [‘স্থানীয় সংবাদ’-এর সমস্ত কিছু জানতে এখানে ক্লিক করুন] সপ্তাহ। সরকারের শিক্ষা দপ্তরের উদ্যোগে একটি ওয়েবসাইট বানানো হয়েছে কেরিয়ার কাউন্সেলিং এর জন্য। প্রত্যেক ছাত্রছাত্রী সেখানে লগইন করে তাদের হবি এবং পছন্দের বিষয় ও কেরিয়ার সম্বন্ধে অনেক তথ্য পেতে সক্ষম হবে। পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সমগ্র শিক্ষা মিশনের মেমো নাম্বার – 876/12/pde/PBSSM/2021 Dt- 26:7:22 এই অর্ডারে [অর্ডারটি দেখার জন্য এখানে 👆ক্লিক করুন] বলা আছে প্রতি বিদ্যালয়ে আগষ্ট মাসের ১-২০ এই সময় ব্যাপী “কেরিয়ার উইক” পালন করতে হবে।
https://wbcareerportal.in/ এই ওয়েবসাইটে প্রতি ছাত্রছাত্রী বাংলার শিক্ষা পোর্টালে যে স্টুডেন্ট আইডি দিয়ে লগ ইন করতে পারবে। ইনিশিয়াল পাসওয়ার্ড বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মহাশয় দিতে পারবেন। কোনও রকম সমস্যা হলে আমার এই পোষ্টের নীচে কমেন্ট করলে আমিও এই বিষয়ে হেল্প করতে পারবো।
আর এই লিঙ্কের ভিডিওটা দেখে নিলে আরও সুবিধা হবে-

আমাদের ঘাটাল মহকুমার প্রায় সব বিদ্যালয় ধুমধাম করে এই কেরিয়ার উইক পালন করছে। খুব গর্ব হয় এইসব স্কুলগুলির জন্য। আমি নিজে খুব স্কুলে যেতে ভালবাসি, সময় পেলেই চলে যাই বিভিন্ন স্কুলে, সেখানে গিয়ে মিড ডে মিল খেয়েও আসি আর ছাত্রছাত্রীদের সাথে একটু কেরিয়ার গাইডেন্স বিষয়ে আলোচনা করে আসি।

কিছুদিন আগে পূর্ব মেদিনীপুরের সমগ্র শিক্ষা মিশনের উদ্যোগে একটি কেরিয়ার ওয়ার্কশপ হয়েছিল সেই ওয়ার্কশপেও আমি উপস্থিত ছিলাম, যেহেতু আমি একসময় ওই জেলার ডিপিও সর্ব শিক্ষা মিশন ছিলাম তাই ডেকেছিলেন উনারা। সেই ভিডিও এর লিঙ্কটাও দিয়ে রাখছি হয়ত ছাত্রছাত্রীরদের কাজে আসতে পারে। –

যাইহোক সেই রবিঠাকুরের সেই কথাটা বলি এবার। রবি ঠাকুর তাঁর শিক্ষা নামক প্রবন্ধে বলেছিলেন “আমাদের শিক্ষাকে আমরা বহন করিয়া চলিলাম, বাহন করিতে পারিলাম না”।
আমরা অর্জিত বিদ্যার Carrier হবো নাকি বিদ্যার মাধ্যমে নিজেদের Career গঠন করবো সেই চয়েজ আমাদের ছাত্রছাত্রীদের।
আসুন আমরা পশ্চিমবঙ্গ সরকারের এই কেরিয়ার পোর্টালটির একটু প্রচার ও প্রসার ঘটাই।

আমার কাছে বেশকিছু ছেলেমেয়ে আসে যারা মেধাবী হওয়া সত্ত্বেও প্রথম প্রজন্মের শিক্ষিত হওয়ায় বা বাড়ির কারও গাইডেন্সের অভাবে ২-৩ বছর এমন প্রতিষ্ঠানে পড়াশোনা করেছে যে তাদের ডিগ্রি স্তরের সেই কলেজের কোনও অ্যাফিলিয়েশন ছিল না। একটা সময় বুঝতে পেরেছে কিন্তু দু-এক বছর গোল্ডেন টাইম এবং বাবার অনেক টাকা শেষ হয়ে গেছে। বাংলার বাইরে উচ্চ শিক্ষা লাভ করার জন্য অনেকেই এভাবে মিস গাইডেড হয়ে শেষে ডিপ্রেশনে সুইসাইডও করতে উদ্যত হয়। যার জলজ্যান্ত প্রমাণ কয়েকদিন আগে চন্দ্রকোনা টাউনের একটি মেয়ে স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড এ লোন পায়নি বলে সুইসাইডাল অ্যাটেমপ্ট নিয়েছিল। ব্যাঙ্ক জানিয়েছে যে মেয়েটি যে প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হয়েছিল সেটির অ্যাফিলিয়েশন ছিল না।
শিক্ষক মহাশয়দের কাছে এবং অভিভাবকদের কাছে একান্ত অনুরোধ পশ্চিমবঙ্গ সরকারের এই কেরিয়ার পোর্টালটি ফলো করুন এটি ফলো করলে আপনার সন্তান অন্তত মিসগাইডের শিকার হবে না।
আমি নিজে এই পোর্টালটি ফলো করে দেখেছি এটি বেশ ইউজার ফ্রেন্ডলি।

আমার বন্ধু তালিকার শিক্ষক মহাশয় শিক্ষিকা মহাশয়ারা অনুগ্রহ করে এই কেরিয়ার পোর্টালটি আপনাদের সন্তানতুল্য ছাত্রছাত্রীরদের সাথে শেয়ার করুন এবং একটু বুঝিয়ে দিন।

শেষপাতে আমাদের স্কুলগুলির কেরিয়ার কাউন্সেলিং এর কিছু ছবি দেখা যাক।

ঘাটাল মহকুমার সমস্ত আপডেট তে যুক্ত হন আমাদের সাথে!

‘স্থানীয় সংবাদ’ •ঘাটাল •পশ্চিম মেদিনীপুর-৭২১২১২ •ইমেল: [email protected] •হোয়াটসঅ্যাপ: 9933998177/9732738015/9932953367/9647180572/9434243732 আমাদের এই নিউজ পোর্টালটি ছাড়াও ‘স্থানীয় সংবাদ’ নামে একটি সংবাদপত্র, MyGhatalমোবাইল অ্যাপ এবং https://www.youtube.com/SthaniyaSambad ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে।