দিদির আবার বশ?রামজীবনপুরে এসে তোলপাড় বিজেপি নেতার

অসীম বেরা: প্রশাসনিক দপ্তর গুলি যদি ঘুঘুর বাসা হয়, নবান্নে কি কোকিল বাস করে! রামজীবনপুরের অভিনন্দন সভায় যোগ দিয়ে তৃণমূলকে তীব্র কটাক্ষ ছুড়ে দিলেন রাজ্য বিজেপির দাপুটে নেতা শমীক ভট্টাচার্য। একইসাথে তার দাবি দুর্নীতি বাদ দিলে তৃণমূল দলটাই থাকবে না।
নির্বাচন কৌশলী প্রশান্ত কিশোর কে নিয়েও এদিন কটাক্ষ করে শমীক ভট্টাচার্য, তিনি বলেন এতদিন তৃণমূলের দিদি ছিলেন বস, এবার তারও বস প্রশান্ত কিশোর।

তৃণমূল সুপ্রিমো কে নিশানা করে তিনি বলেন, দিদি সব পারেন! মরুভূমিতে ফসল ফলানো থেকে শুরু করে জ্যোতি আলুর ফলন কে দ্বিগুণ করে দেওয়া সবই সম্ভব তৃণমূল সুপ্রিমোর পক্ষে।

প্রসঙ্গত বৃহস্পতিবার রামজীবনপুর অভিনন্দন যাত্রায় পা মেলানোর পর অভিনন্দন সভায় যোগ দেন শমীক ভট্টাচার্য। মঞ্চে দাঁড়িয়ে নাম না করে মমতা ব্যানার্জি তথা তৃণমূল শিবির কে একহাত নেন তিনি।

সম্প্রতি রাজ্যের তিন বিধানসভা উপনির্বাচনে হার স্বীকার করেছে গেরুয়া শিবির, যদিও এই হারকে গুরুত্ব দিতে নারাজ রাজ্য বিজেপির এই দাপুটে নেতা। তার দাবি, তিনটে বল ডট করেছি পরেরটায় ৬ হাঁকাবো। সব মিলিয়ে পৌর ভোটের আগেই মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্যকে হাতিয়ার করে আক্রমণ শানাতে ব্যস্ত গেরুয়া শিবির॥